Main Menu

রোহিঙ্গা ইস্যুতে চীন ও ভারত যা বলছে, তা গ্রহণযোগ্য নয় বাংলাদেশের কাছে

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, রোহিঙ্গা ইস্যুতে চীন ও ভারত যা বলছে, তা বাংলাদেশের কাছে গ্রহণযোগ্য নয়। গতকাল শুক্রবার জাতিসংঘে বাংলাদেশের স্থায়ী মিশনে এক সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী জানান, দুই দেশের কূটনীতিকরা রোহিঙ্গাদের দুর্দশা দেখেছেন। রোহিঙ্গাদের প্রতি তারা অত্যন্ত সহানুভূতিশীল।

শেখ হাসিনা জানান, কক্সবাজারে রোহিঙ্গাদের শিবিরে শরণার্থীদের দুর্দশা দেখতে ঢাকায় অবস্থানরত সব কূটনীতিকরা গিয়েছেন। তারা রোহিঙ্গাদের সঙ্গে কথা বলেছেন। তারা সবাই রোহিঙ্গাদের প্রতি সহানুভূতিশীল।

তিনি আরো জানান, মিয়ানমারের আট লাখ নাগরিক বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে। তাদের খাদ্য, বাসস্থান, জরুরি ত্রাণ এবং প্রত্যাবাসন নিয়ে জটিল সংকট মোকাবিলা করতে হচ্ছে বাংলাদেশকে।

এ ছাড়াও জাতিসংঘের মহাসচিব আন্তোনিও গুতেরেসের সঙ্গে তার বৈঠকের বিষয়ে শেখ হাসিনা জানান, জাতিসংঘের মহাসচিব বলেছেন, রোহিঙ্গা সমস্যার স্থায়ী সমাধানে সম্ভাব্য সবকিছু করা হবে।

সংবাদ সম্মেলনে পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ এইচ মাহমুদ আলী, জাতিসংঘে বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি মাসুদ বিন মোমেন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

 

উল্লেখ্য, জাতিসংঘের সাধারণ অধিবেশনে যোগ দিতে গত রবিবার নিউ ইয়র্কে যান প্রধানমন্ত্রী। পাঁচ দিন নিউ ইয়র্কে অবস্থানের পর গতকাল সংবাদ সম্মেলন করে ওয়াশিংটনে যান তিনি। সেখান থেকে ২৯ সেপ্টেম্বর রওনা হয়ে ২ অক্টোবর দেশে ফেরার কথা রয়েছে তার।

Comments

comments






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*

Facebook

Likebox Slider Pro for WordPress